আর্কাইভ কনভাটার ঢাকা, সোমবার, মে ২৭, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
Logo

ঘূর্ণিঝড় রেমাল

logo

পেরুর প্রেসিডেন্টের বাড়িতে রোলেক্স ঘড়ির সন্ধানে অভিযান

Quest for Rolex watches


অনলাইন ডেস্ক প্রকাশিত:  ২৩ মে, ২০২৪, ০৮:২৯ এএম

পেরুর প্রেসিডেন্টের বাড়িতে রোলেক্স ঘড়ির সন্ধানে অভিযান
পেরুর প্রেসিডেন্টের বাড়িতে রোলেক্স ঘড়ির সন্ধানে অভিযান

পেরুর প্রেসিডেন্ট দিনা বোলুয়ার্তের বাড়িতে অভিযান চালিয়েছে দক্ষিণ আমেরিকার এই দেশটির পুলিশ ও সরকারি কর্মকর্তারা। তার বিরুদ্ধে চলমান একটি দুর্নীতি তদন্তের অংশ হিসেবে শনিবার (৩০ মার্চ) এই অভিযান চালানো হয়।

পেরুর সরকার অবশ্য এই অভিযানকে ‘অসাংবিধানিক’ বলে আখ্যায়িত করেছে। রোববার (৩১ মার্চ) এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানিয়েছে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, পেরুর পুলিশ ‘রোলেক্সগেট’ নামে পরিচিত দুর্নীতির তদন্তের অংশ হিসাবে দেশটির প্রেসিডেন্ট দিনা বোলুয়ার্তের বাড়িতে অভিযান চালিয়েছে। অভিযানের সময় কর্তৃপক্ষ এক ডজনেরও বেশি রোলেক্স ঘড়ির সন্ধান করে। মূলত বিলাসবহুল এসব ঘড়ি নিজের কাছে আছে বলে প্রেসিডেন্ট বোলুয়ার্তে ঘোষণা করেননি বলে অভিযোগ রয়েছে।

বিবিসি বলছে, ২০২২ সালের ডিসেম্বরে দায়িত্ব নেওয়ার সময় থেকে সরকারি অনুষ্ঠানগুলোতে তিনি যে বিলাসবহুল ঘড়ি পরতেন সে বিষয়ে একটি সংবাদ প্রতিবেদন প্রকাশের পর এই বিষয়ে তদন্ত শুরু হয়।

অবশ্য পেরুর সরকার শনিবারের এই অভিযানকে ‘অসামঞ্জস্যপূর্ণ ও অসাংবিধানিক’ বলে বর্ণনা করেছে। পেরুর প্রধানমন্ত্রী গুস্তাভো আদ্রিয়ানজেন সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্ম এক্সে লিখেছেন, ‘যে রাজনৈতিক গোলমাল করা হচ্ছে তা গুরুতর। এটি বিনিয়োগসহ সমগ্র দেশকে ক্ষতিগ্রস্ত করছে।’

এর আগে সরকারি নিয়ন্ত্রক সংস্থা চলতি মাসের শুরুতে ঘোষণা করে, তারা গত দুই বছরের দিনা বোলুয়ার্তের সম্পদের ঘোষণা পর্যালোচনা করবে। তবে গত সপ্তাহে বোলুয়ার্তে জোর দিয়ে বলেন, তিনি ‘পরিষ্কার হাতে’ সরকারে প্রবেশ করেছেন এবং তিনি ‘পরিষ্কার হাতেই এটি ছেড়ে দেবেন’।

তিনি বলেন, তার কাছে থাকা রোলেক্স ঘড়ি পুরোনো জিনিস যা তিনি ১৮ বছর বয়স থেকে কাজ করার অর্থ দিয়ে কিনেছিলেন।


বিবিসি বলছে, শনিবার ভোরে হওয়া এই অভিযানে পুলিশ এবং প্রসিকিউটর অফিসের কর্মকর্তারা অংশ নিয়েছিল এবং স্থানীয় টেলিভিশন চ্যানেল লাতিনাতে এটি সম্প্রচার করা হয়। অভিযানের সময় পুলিশ প্রেসিডেন্টের বাসভবনের দরজা ভেঙে ফেলে।

যদিও অভিযান পরিচালনাকারী কর্মকর্তারা এর আগে স্পষ্টতই দরজা খোলার আহ্বান জানিয়েছিলেন এবং তাদের সেখানে অনুসন্ধান চালানোর অনুমতি দেওয়া হয়নি।

প্রধানমন্ত্রী গুস্তাভো আদ্রিয়ানজেন বলেছেন, প্রেসিডেন্ট এই অভিযানের সময় তার অফিসে ছিলেন। যদিও দিনা বোলুয়ার্তে এখনও অভিযানের বিষয়ে মন্তব্য করেননি।

প্রধানমন্ত্রী আরপিপি রেডিও স্টেশনকে বলেন, বোলুয়ার্তের পদত্যাগ করার কোনও পরিকল্পনা নেই।

বিবিএন/৩১মার্চ/এসডি

google.com, pub-6631631227104834, DIRECT, f08c47fec0942fa0