আর্কাইভ কনভাটার ঢাকা, বুধবার, জুন ১৯, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ৫ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
Logo

logo

পেটে পিস্তল ঠেকিয়ে শিক্ষককে হাতুড়িপেটার অভিযোগ

Allegation of hammering the teacher


অনলাইন ডেস্ক: প্রকাশিত:  ১৮ জুন, ২০২৪, ১১:৩০ পিএম

পেটে পিস্তল ঠেকিয়ে শিক্ষককে হাতুড়িপেটার অভিযোগ
পেটে পিস্তল ঠেকিয়ে শিক্ষককে হাতুড়িপেটার অভিযোগ

ঝালিকাঠির রাজাপুর পেটে পিস্তল ঠেকিয়ে মোস্তাফিজুর রহমান জাকির নামে এক শিক্ষককে মারধরের অভিযোগ উঠেছে কথিত কিশোর গ্যাংয়ের বিরুদ্ধে। গুরুতর রক্তাক্ত জখম হয়।

রোববার (৪ ফেব্রুয়ারি) রাত ৮টার দিকে মধ্য নারিকেল বাড়িয়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। ওই গ্রামের ইউপি সদস্য সোবাহান হাওলাদারের ছেলে তৌহিদুল ইসলাম চান দলবল নিয়ে এ হামলা চালায় বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

আহত মোস্তাফিজুর রহমান জাকির একই গ্রামের মোতাহার হাওলাদারের ছেলে। তিনি উপজেলার নুরুন্নাহার বালিকা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের বাংলা বিষয়ে সহকারী শিক্ষক পদে কর্মরত।

আহত মোস্তাফিজুর রহমান জাকির জানান, সন্ধ্যার পরে অবসরপ্রাপ্ত এক শিক্ষককে এগিয়ে দিয়ে ফেরার পথে তৌহিদুল ইসলাম চান কিশোর গ্যাং নিয়ে পথরোধ করে। পেটে পিস্তল ঠেকিয়ে লাঠি ও হাতুড়ি নিয়ে মারধর শুরু করে তৌহিদুল, ফারুক, তুহিন, রাকিব, মোস্তাফিজ, খলিলুর রহমানসহ আরও কয়েকজন। পেটে পিস্তল ঠেকানোর ফলে কোনো চিৎকারও দিতে পারিনি। মাথা ফাটিয়ে রক্তাক্ত জখম করে। হঠাৎ লাইটের আলো দেখে মৃত ভেবে ফেলে রেখে যায় তারা। পরে স্থানীয়রা উদ্ধার করে থানায় নেয়। এ ঘটনায় নিয়ে মামলার প্রস্তুতি চলছে।

তিনি আরও জানান, ওই কিশোর গ্যাং নারিকেল বাড়িয়া (ক্লাব) বাজারের ক্ষুদ্রব্যবসায়ী জাকির হোসেন হাওলাদারকেও চাঁদার দাবিতে অগ্নেয়াস্ত্র ঠেকিয়ে মারধরের অভিযোগ উঠেছে।

রাজাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আতাউর রহমান জানান, বিষয়টি আমাদের নজরে এসেছে। এখনও কেউ অভিযোগ করেনি। অভিযোগ পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

কট/বি

google.com, pub-6631631227104834, DIRECT, f08c47fec0942fa0